প্রধানমন্ত্রীর ফ্লাইটে সিকিউরিটি ট্যাগবিহীন খাবার

প্রধানমন্ত্রীর ফ্লাইটে সিকিউরিটি ট্যাগবিহীন খাবার ফেরত দিয়েছে এসএসএফ। তবে নিরাপত্তা ট্যাগবিহীন খাবার কেন প্রধানমন্ত্রীর ফ্লাইটে পাঠানো হলো তা তদন্ত করে দেখছে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনস। ঢাকা থেকে ভিয়েনাগামী প্রধানমন্ত্রীর ওই ফ্লাইটে অননুমোদিত (সিকিউরিটি ট্যাগ ব্যতীত) খাবার ওঠানোর পর এসএসএফ তা প্রত্যাখ্যান করে। বিমানের এমডি ক্যাপ্টেন এম মোসাদ্দিক আহমেদ বলেছেন, ‘তদন্ত না করে কিছুই বলা যাবে না। ওই ফ্লাইটে খাবার তালিকায় কী ছিল আর কী দেওয়া হয়েছিল, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। কার কতটুকু দায়, তা তদন্তেই বেরিয়ে আসবে। এটা খুবই সেনসেটিভ। ’ বিমানসূত্র জানিয়েছে, গতকাল প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দুই দিনের সফরে ভিয়েনা রওনা হন বিমানের বোয়িং ৭৭৭-এর একটি ফ্লাইটে। সঙ্গে রয়েছেন শতাধিক সফরসঙ্গী। ভিভিআইপি ফ্লাইটের খাবার ওঠানোর জন্য এসএসএফের একটি টিমের উপস্থিতিতে রবিবার রাত ৩টায় বিএফসিসিতে প্রধানমন্ত্রীর জন্য পূর্বনিধারিত মেন্যু অনুযায়ী খাবার ক্রমতালিকা অনুসারে পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর একটি কক্ষে সিলগালা করা হয়। গতকাল সকালে বিএফসিসির একটি কার্টে করে ওই খাবার পাঠানো হয় ফ্লাইটে। তখন এসএসএফ দেখতে পায় সিকিউরিটি ট্যাগ ছাড়া দুই ফ্লাস্ক স্যুপ প্রধানমন্ত্রীর জন্য দেওয়া হয়েছে। এসএসএফ স্যুপ গ্রহণ করেনি। বিএফসিসি সূত্র জানিয়েছে, প্রধানমন্ত্রীর খাবার মেন্যুতে চিকেন ও ভেজিটেবল স্যুপ ছিল। সেভাবে স্যুপভর্তি দুটি ফ্লাস্ক সেখানে অন্যান্য খাবারের সঙ্গে নেওয়াও হয়েছিল। কিন্তু দায়িত্বে থাকা কর্মকর্তারা ফ্লাস্ক দুটি তালিকা অনুসারে অন্যান্য খাবারের সঙ্গে কার্টে না রেখে বাইরে ফেলে রাখেন। সকালে যখন খাবার ওঠানো হচ্ছিল, তখন ওই দুটি ফ্লাস্কে সিকিউরিটি ট্যাগ না লাগিয়ে তাড়াহুড়া করে দুটি পলিথিনে ভরে সরাসরি পাঠিয়ে দেওয়া হয় ফ্লাইটে। আর তাতেই বিপত্তি ঘটে।

post: tarek

Share Button